Home | ব্রেকিং নিউজ | লোহাগাড়ার সন্তান এহসানুল করিমের পিএইচডি ডিগ্রী অর্জন

লোহাগাড়ার সন্তান এহসানুল করিমের পিএইচডি ডিগ্রী অর্জন

image_printপ্রিন্ট করুন

এলনিউজ২৪ডটকম : চট্টগ্রামের লোহাগাড়া উপজেলার আমিরাবাদ ইউনিয়নের মল্লিক ছোবহান হাজির পাড়ার এহসানুল করিম সম্প্রতি মালেশিয়ার পাহাং বিশ্ববিদ্যালয় থেকে শক্তি ও পরিবেশের উপর গবেষণার স্বীকৃতি স্বরূপ পিএইচডি ডিগ্রী লাভ করেছেন।

তাঁর গবেষণার বিষয় ছিল ‘নবায়নযোগ্য শক্তি এবং পরিবেশগত প্রকৌশল’। বর্তমানে তিনি কানাডার কুইবেক অঙ্গরাজ্যের লাভাল বিশ্ববিদ্যালয়ে গবেষক হিসেবে কর্মরত। সেখানে তার গবেষণার বিষয় মাটি ও পরিবেশ।

ড. এহসান সিলেটের শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং অ্যান্ড এনভাইরোনমেন্টাল সায়েন্স বিভাগ থেকে স্নাতক ও স্নাতকোত্তর সম্পন্ন করেন। এরপর কক্সবাজারের রোহিঙ্গা শরনার্থী শিবিরে জাতিসংঘের আন্তর্জাতিক অভিবাসন সংস্থায় যোগ দেন। সেখানে তিনি প্রকল্প প্রকৌশলী হিসেবে দায়িত্বপ্রাপ্ত ছিলেন।

পরবর্তীতে গবেষণা কাজে মনোনিবেশ করার জন্য চাকুরী থেকে স্থতফা দেন। পাড়ি জমান মালেশিয়ার উদ্দেশ্যে। পাহাং বিশ্ববিদ্যালয়ে বৃত্তি নিয়ে শুরু করেন পিএইচডি’র গবেষণা।

বিশ্ববিদ্যালয় জীবনে গবেষণায় মতো রসকষহীন বিষয়ে হাতেখড়ি তার। তরুণ এই গবেষক ইতোমধ্যে ১৫টির অধিক প্রসিদ্ধ গবেষণাপত্র আন্তর্জাতিক জার্ণালে প্রকাশ করতে সক্ষম হয়েছেন।

তিনি ২০০৩ সালে চট্টগ্রামের পদুয়া এ.সি.এম উচ্চ বিদ্যালয় থেকে মাধ্যমিক পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হন। ঐতিহ্যবাহী বিদ্যাপীঠ চট্টগ্রাম কলেজ থেকে শেষ করেন উচ্চ মাধ্যমিকের পাঠ।

প্রথাগত দূর্নীতি-অনিয়মের বিরুদ্ধে সোচ্চার থেকে গবেষণালব্ধ জ্ঞান ও মেধাকে কাজে লাগিয়ে প্রিয় মাতৃভূমি বাংলাদেশকে এগিয়ে নিতে চান ড. এহসান। একটি সাম্যভিত্তিক নৈতিকতা সমৃদ্ধ সমাজের স্বপ্ন দেখেন প্রতিশ্রুতিশীল এই গবেষক।

ড. এহসানুল করিম লোহাগাড়া উপজেলার আমিরাবাদ ইউনিয়নে মল্লিক ছোবহান হাজির পাড়ায় জন্মগ্রহন করেন। পিতা ডা. আবদুল কাইয়ুম সাবেক উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা। সম্ভ্রান্ত মুসলিম পরিবারে জন্ম নেয়া এই তরুণ গবেষকের কৈশোরের দূরন্ত সময় গ্রামেই কেটেছে।

ছাত্রজীবনে তিনি বিভিন্ন সামাজিক ও সেচ্চাসেবী কাজে সম্পৃক্ত থেকেছেন। ২০১৭-২০১৮ সেশনে মালেশিয়ার পাহাং বিশ্ববিদ্যালয়ের পোস্টগ্রাজুয়েট অ্যাসোসিয়েশনের সহ-সভাপতির দায়িত্ব পালনের অভিজ্ঞতা আছে এই গবেষকের।

উল্লেখ্য, ড. এহসানুল করিম দৈনিক কর্ণফুলী পত্রিকার লোহাগাড়া প্রতিনিধি ও সংগঠক এম. সাইফুল্লাহ চৌধুরীর ভাতিজা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

error: Content is protected !!