Home | সাহিত্য পাতা | ফিরোজা সামাদ’র ২টি কবিতা

ফিরোজা সামাদ’র ২টি কবিতা

image_printপ্রিন্ট করুন

553

যাযাবর রাত

অাঁধারীতে নীড়ে নির্ঘুম রাত কাটে
অামার অসহায়ের মতো,
যাযাবর রাতজাগা আমায়
নিয়ে যায় দূর বহুদূরে,
যেথায় হিম রাত্তিরে মেঠো অালপথে দাড়িয়ে থাকা গাছের মাথায়
একা চাঁদ জেগে থাকে !!

যেথায় নিঃসঙ্গ এক পথিক
আনমনে বুকে নিয়ে বসে থাকে
দুঃসহ বিষাদ মেশানো ভালোবাসার
এক অবিনাশী নেশা !!
হায় ভালোবাসা কুসুম কুসুম উষ্ণতায়
জড়িয়ে থাকো অাশ্বিনের কোজাগরী ড়
পূর্ণিমা জ্যোৎস্নাকে !!

শারদীয়ায় নদীর তীরে গাঙচিলেরা
বেলাশেষে উড়ে উড়ে ঘুরে মরে
কাশবনের ছায় বসতীর অাশায়,
অার ;
অামি বসে অাছি সন্ধ্যাকালীন
গল্পে গল্পে চায়ের কাপে তলানীতে
পড়ে থাকা শেষ চুমুকের অপেক্ষায় !!
————————————-

চোখের তারায় পদ্ম শতদল

টুপটাপ ঝরে পড়া অশ্রুজল
যদি কান্না হতো ,
সবুজ হলেই তবে পান্না হয়ে যেতো !
হৃদয়ের গোপন কুঠুরিতে জমানো
সজল কিছু দুঃখ টুপটাপ ঝরে পড়ে
অশ্রুজল হয়ে,
অথচ টুপটাপ শব্দকে বুঝি
শুধু বৃষ্টি ঝরে পড়ে বলে ?
টুপটাপ ঝরে পড়ে গাছের বিরহী
বিবর্ণ পাতারা !!

কেনো যেনো স্রোতস্বিনী বলতে বুঝি
বয়ে যাওয়া কোনো নদীকে।,
পাহাড়ের কান্নায় বয়ে যায় ঝর্না
অথবা পাহাড়ি বানের ঢল,
কেনো বুঝিনা হৃদয়ের অাবেগের শতো কোলাহল ?

দু’টি পাখি ভাবলেই মনে পড়ে
একটি নীড়ের কথা,
যেখানে থাকে ঝড়ে ডানা ভাঙ্গা
দু’টি পাখির ছানার অভয়ারণ্য ,
কেনো ভাবতে চাইনা হতে পারে
দু’টো মানব মানবীর নিরাপদ
বেঁচে থাকার অাবাসস্হল ?

তুমি শব্দটিতে কেনো খুঁজে বেড়াও
সমসাময়িক বন্ধুত্বে নিষিদ্ধ প্রেম ?
তুমি বললেই কেনো বোঝ
সে শুধু তুমিই ?
না দেখেই না বুঝেই শুধু ভুল বোঝ,
তাকিয়ে দেখো চোখের তারায়
সেথায় শিশির ভেজা পদ্ম শতদল !!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

error: Content is protected !!