Home | দেশ-বিদেশের সংবাদ | পুড়ছে ফিলিস্তিন, ফুঁসছে বিশ্ব

পুড়ছে ফিলিস্তিন, ফুঁসছে বিশ্ব

image_printপ্রিন্ট করুন

আন্তর্জাতিক ডেক্স : গাজায় ইসরায়েলি হামলার বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানাতে নিউইয়র্ক, লন্ডন, করাচি, রাবাতের মতো বিশ্বের বড় শহরগুলোতে জড়ো হয়েছে হাজার হাজার মানুষ।

গতকাল মঙ্গলবার (১১ মে) বিক্ষোভকারীরা জেরুজালেমের ওল্ড সিটির আল-আকসা মসজিদ প্রাঙ্গনে চলমান অভিযানের নিন্দা জানাতে সমাবেশ করে।

কিছু বিক্ষোভকারী ‘ফ্রি প্যালেস্টাইন’, ‘ইসরায়েল একটি সন্ত্রাসী রাষ্ট্র’ এবং ‘দখল আর নয়’ লেখা ব্যানার নিয়ে সমাবেশ করে।

১. ফিলিস্তিনিদের প্রতি তাদের একাত্মতা প্রকাশের জন্য বিক্ষোভকারীরা নিউইয়র্ক সিটির টাইমস স্কোয়ারে মিছিল করেছে। [ছবি: রয়টার্স]

২. দক্ষিণ আফ্রিকার স্যান্ডটনে ইসরায়েল বাণিজ্য অফিসের বাইরে বিক্ষোভকারীরা সমাবেশ করেছে। [ছবি: রয়টার্স]

৩. গাজায় ইসরায়েলের বিমান হামলার নিন্দা জানাতে পাকিস্তানের করাচিতে বিক্ষোভকারীরা রাস্তায় নেমে পড়ে। [ছবি: এএফপি]

৪. লন্ডনের জনগণও ফিলিস্তিনিদের সঙ্গে তাদের একাত্মতা প্রকাশ করেছে। [ছবি: রয়টার্স]

৫. রাবাতে বিক্ষোভকারীরা মরোক্কোর রাজধানীতে মিছিল করার সময় ফিলিস্তিনি পতাকা বহন করে। [ছবি: এপি]

৬. নিউইয়র্কে ফিলিস্তিনি পন্থী সমর্থকরা ইসরায়েলি কনস্যুলেটের কাছে মিছিল করে। [ছবি: রয়টার্স]

৭. আঙ্কারায় বিক্ষোভকারীরা তুর্কি ও ফিলিস্তিনি পতাকা বহন করে। [ছবি: রয়টার্স]

৮. সুদানের রাজধানী খার্তুমের জনগণ গাজা এবং অধিকৃত পশ্চিম তীরে ইসরায়েলের কর্মকাণ্ডের বিরুদ্ধে একত্রিত হয়েছে। [ছবি: গেটি ইমেজ]

৯. লেবাননের বৈরুতের মার ইলিয়াস ক্যাম্পে ফিলিস্তিনি শরণার্থীরাও বিক্ষোভ প্রদর্শন করেছে। [ছবি: গেটি ইমেজ]

কয়েক সপ্তাহ ধরে গাজায় ইসরায়েলি অভিযান দখলকৃত পূর্ব জেরুজালেমের ফিলিস্তিনি এলাকা শেখ জারাহ থেকে ফিলিস্তিনি পরিবারগুলোকে জোরপূর্বক বহিষ্কারের ঘটনায় উত্তেজনা রয়ে গেছে, যা ইহুদি বসতিস্থাপনকারীরা কয়েক দশক ধরে তাদের বহিষ্কার করার চেষ্টা করছে।

পরিস্থিতি আরও বেড়ে যায় যখন ইসরায়েলি পুলিশ জেরুজালেমের ওল্ড সিটির আল-আকসা মসজিদে হামলা চালায়-যা ইসলামের তৃতীয় পবিত্রতম স্থান। বেশ কয়েকদিনের হামলায় শতশত ফিলিস্তিনি উপাসক আহত হন। অধিকৃত অঞ্চল জুড়ে এবং ইসরায়েলের অভ্যন্তরে বিক্ষোভ শুরু হয়। এরপর গাজা পরিচালনাকারী ফিলিস্তিনি দল হামাস ইসরায়েলের দিকে রকেট নিক্ষেপ করে।

সর্বশেষ  মঙ্গলবার (১১ মে) রাত থেকে বুধবার (১২ মে) সকাল পর্যন্ত গাজার পুলিশ সদর দপ্তর এবং নিরাপত্তা ভবনে বোমা হামলা চালিয়েছে ইসরায়েলের সেনাবাহিনী। এতে ১৪ জন শিশুসহ ৪৮ জন ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন ৩০০ জনেরও বেশি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

error: Content is protected !!