ব্রেকিং নিউজ
Home | উন্মুক্ত পাতা | শাকিল-মৌসুমীর শুভ বিবাহে আনন্দ

শাকিল-মৌসুমীর শুভ বিবাহে আনন্দ

22547530_503406800018916_1669344978_n

মুহাম্মদ আবদুল খালেক : বিয়ে আর মৃত্যুতে আত্মীয়তার পরিচয় শানিত হয়। ভ্রাতৃত্ব ও হৃদ্যতা বৃদ্ধি হয়। পারস্পরিক পরিচয় সমৃদ্ধ হয়। দূরের ও কাছের আত্মীয়-স্বজনদের মাঝে সম্প্রীতি সৃষ্টির সুযোগ হয়। প্রতিদিনের ব্যস্ততায় আমরা কখন কিভাবে দূরে সরে যাচ্ছি; টেরও পাচ্ছিনা। শাকিল- মৌসুমীর পরিণয়ের অনুষ্ঠানে পরস্পর চেনা-জানার অপূর্ব সুযোগ সৃষ্টি হলো। কতো শতো স্বজনদের মিলনমেলা। শুধু তাই নয় কতো শতো রাজনীতিকের শুভাগমন। আনন্দ আর আনন্দ। বিয়ে আর মৃত্যু- এই দুই অনুষ্ঠানে আমরা উপস্থিত থাকার চেষ্টা করবো।

১২ অক্টোবর বিষ্যুদবার, সন্ধ্যা। আমি অনুষ্ঠান স্থলে গিয়ে স্বজন তালাশের তালে ছিলাম। এবং অপেক্ষার প্রহর গুণছি, কখন শাকিল আসবে। চট্টগ্রাম মহানগর ছাত্রলীগের সহ-সভাপতির দায়িত্বে মোহাম্মদ শাকিল এবং সাবেক নির্বাচিত জিএস চট্টগ্রাম আইন কলেজ ছাত্র সংসদ। মাহনূর রহমান মৌসুমী ফাস্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক চকবাজার শাখার কর্মকর্তা এবং আমার øেহাষ্পদ ভাগিনী। যথাসময়ে শাকিল সোনালী শুভ্র বর মঞ্চে উপস্থিত। হাজারো নেতার পদচারণায় মুখরিত। বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলার সাধারণ সম্পাদক মফিজুর রহমানসহ শতাধিক নেতাকর্মী প্রাণঢালা অভিনন্দন জানাতে মঞ্চে। ক্যামরার ফ্লাশ লাইটের আলোয় রোমাঞ্চিত হলো পুরো অনুষ্ঠান।

সিঁড়ি বেয়ে নামতেই দেখছি বিশিষ্ট রাজনীতিবিদ বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের উপ-প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক আমিনুল ইসলাম। তিনিও শতাধিক নেতাকর্মী নিয়ে শাকিল-মৌসুমীকে আশীষ করলেন। অনেককে চিনতে না পারলেও উপলব্ধি করছি ‘তাঁরা রাজনৈতিক নেতা’। সবার চোখে মুখে আনন্দ। জয় হোক শাকিল- মৌসুমীর অনাগত দিন।

ফটোসেশন শেষে ফিরতেই দ্যাখছি বিশ্ববরেণ্য আলেমেদ্বীন মাননীয় সাংসদ প্রফেসর ড. আবু রেজা মুহাম্মদ নেজাম উদ্দিন নদভী ও বাংলাদেশ মহিলা আওয়ামীলীগের কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য ও আল্লামা ফজলুল্লাহ ফাউন্ডেশনের নির্বাহী পরিচালক মিসেস রিজিয়া রেজা চৌধুরী শতাধিক নেতাকর্মী নিয়ে বর-কনে দু’জনকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানাতে মঞ্চের দিকে এগিয়ে এলেন। আহা, কি আনন্দ আকাশে-বাতাসে। আবার ফটোসেশন ও সেলফী। শাকিল-মৌসুমী আনন্দে মাতোয়ারা। ক্লিক ক্লিক শব্দে মঞ্চের সামনে এক মোহনীয় পরিবেশের সৃষ্টি হয়েছে। শাকিলের হাসিতে যেন সারল্য ফুটে ওঠছে।

আমন্ত্রিত বিশিষ্ট অতিথিদের মধ্যে লোহাগাড়া উপজেলার সাবেক চেয়ারম্যান জিয়াউল হক চৌধুরী বাবুল, মোস্তফা গ্র“পের ভাইসচেয়ারম্যান আলহাজ্ব শফিক উদ্দিন, লন্ডন প্রবাসী সৈয়দ আবদুল মাবুদ, এএসপি নাজমুল হাছান, রাজনীতিবিদ নাজমুল মোস্তফা আমিন, লোহাগাড়া উপজেলা ভাইসচেয়ারম্যান অধ্যাপক নুরুল আবছার, সাবেক ভাইসচেয়ারম্যান শ্রী নিবাস দাশ সাগর, চট্টগ্রাম বায়তুশ শরফের বিশিষ্ট আলেম আলহাজ্ব মাওলানা শিহাব উদ্দিন, লোহাগাড়া থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ শাহজাহান পিপিএম (বার), বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি শাহজাদা মহিউদ্দিন, রাজনীতিবিদ লুৎফুর রহমান, ব্যবসায়ী ইছমাইল মানিক, কমিশনার হাসান মুরাদ বিপ্লব, কমিশনার চৌধুরী হাসান মাহমুদ হাছনিসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতাকর্মী, বিভিন্ন স্কুল-কলেজ- মাদ্রাসার শিক্ষকবৃন্দ, ব্যবসায়ী, সাংস্কৃতিক ও সামাজিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দরা উপস্থিত হয়ে অনুষ্ঠানকে প্রাণবন্ত ও বর্ণাঢ্য করেছে।

শাকিল-মৌসুমীর যুগল জীবনের যাত্রা আনন্দে ভরে ওঠুক। অগণিত রাজনীতিক ও আত্মীয়-স্বজনের দোয়ায় নিশ্চয় পথচলা সুন্দর ও শান্তিময় হবে। স্বামী-স্ত্রী পরস্পরের দর্পণ। জিদ্ নয়, পারস্পরিক বুঝাপড়ায় পথ চলতে হয়। আশা ও বিশ্বাস শাকিল-মৌসুমী পথে চলবে। ধৈর্য্য ও সহমর্মিতায় রয়েছে প্রশান্তি। প্রতিযোগিতা হোক ভালোবাসার এবং বিশ্বাসের। প্রত্যয় হোক, ‘আমিই ভালোবাসায় প্রথম হবো এবং বিনালাভে ভালোবাসাকে ভালোবাসবো’। জয় হোক ভালোবাসার।

লেখক : সম্পাদক, লোহাগাড়ানিউজ২৪ডটকম; প্রভাষক (বাংলা বিভাগ), আধুনগর ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসা, লোহাগাড়া।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*