ব্রেকিং নিউজ
Home | লোহাগাড়ার সংবাদ | লোহাগাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগ সহ-সভাপতির সাংবাদিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত

লোহাগাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগ সহ-সভাপতির সাংবাদিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত

31123683_592880797738182_8890441298943672320_n

এলনিউজ২৪ডটকম : লোহাগাড়া উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো: মাহবুব আলমের বদলীর আদেশ জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় বাতিল করায় অপসারণের দাবীতে গত ১৯ এপ্রিল অনুষ্ঠিত মানববন্ধন, বিক্ষোভ, প্রতিবাদ সভা ও চট্টগ্রাম-১৫ আসনের সংসদ সদস্য প্রফেসর ড. আবু রেজা মুহাম্মদ নেজামুদ্দিন নদভী সম্পর্কে লোহাগাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি খোরশেদ আলম চৌধুরী ও সাধারণ সম্পাদক সালাহ্ উদ্দিন হিরু সংবাদিক সম্মেলন করে বিভ্রান্তমূলক বক্তব্য দেওয়ার প্রতিবাদ জানিয়ে আজ ২১ এপ্রিল শনিবার সন্ধ্যায় লোহাগাড়া বটতলীস্থ আহমদ মেম্বার মার্কেটের হল রুমে পাল্টপাল্টি সংবাদিক সম্মেলন করেছে লোহাগাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের একাংশের নেতৃবৃন্দ।

সাংবাদিক সম্মেলনে সাবেক উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি এম. এ গণি সম্রাটের সঞ্চালনায় লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন লোহাগাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ও উপজেলা পরিষদের সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান শ্রী নিবাস দাশ সাগর।

লিখিত বক্তব্যে তিনি বলেন, ১৯ এপ্রিল বিকেলে উপজেলা পরিষদ চত্বরে লোহাগাড়া উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো: মাহবুব আলমের অপসারণের দাবীতে গত ১৯ এপ্রিল অনুষ্ঠিত মানববন্ধন, বিক্ষোভ, প্রতিবাদ সভা করেন উপজেলা আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগ, কৃষকলীগ ও শ্রমিক লীগের নেতৃবৃন্দ। কিন্তু উপজেলা আ’লীগের মেয়াদোত্তীর্ণ সভাপতি-সাধারণ সম্পাদক উক্ত মানববন্ধন, বিক্ষোভ, প্রতিবাদ সভা ও এমপি নদভী সম্পর্কে বিভ্রান্তমূলক বক্তব্য সম্পূর্ণ মিথ্যা, বানোয়াট, ভিত্তিহীন, অসত্য ও কাল্পনিক বক্তব্যের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ এবং তাদের মনগড়া বক্তব্য প্রত্যাহারের দাবী জানাচ্ছি। লিখিত বক্তব্যে তিনি আরো বলেন, আমাদের আন্দোলন যৌক্তিক ও শান্তিপূর্ণ। এই শান্তিপূর্ণ আন্দোলনকে ভিন্ন খাতে প্রবাহিত করার জন্য উপজেলা আওয়ামী লীগের মেয়াদোত্তীর্ণ সভাপতি-সম্পাদক যে অপচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে সেটি কার এজেন্ডা বাস্তবায়ন করছে তা আমাদের বোধগম্য নহে। আমরা তাদের এই ধরণের হীন কর্মকান্ড থেকে বিরত থাকার জন্য আহবান জানাচ্ছি।

গত ২০১৩ সনের জুন মাসে সম্মেলনের মাধ্যমে লোহাগাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের কমিটি গঠিত হয়েছিল। এখন মেয়াদোত্তীর্ণ এ কমিটি উপজেলার প্রতিটি ইউনিয়নে অগঠনতান্ত্রিক ভাবে পকেট কমিটি ঘোষণা দিয়েছেন। তাদের কর্মকান্ডে দলকে শক্তিশালী করার পরিবর্তে বিভক্তি ও হতাশার সৃষ্টি করছে। এই মেয়াদোত্তীর্ণ কমিটি বিলুপ্ত করে নতুন কমিটি করার জন্য জেলা আওয়ামী লীগসহ সকলের আশু হস্তক্ষেপ কামনা করছেন।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নে জবাবে লোহাগাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের একাংশের নেতাকর্মীরা বলেন, তারা এখন গ্রুপে পরিণত হয়েছে। সভাপতি-সম্পাদক যেমন সাংবাদিক সম্মেলন করার সময় তাদের বলেননি ঠিক তারাও পাল্টাপাল্টি সাংবাদিক সম্মেলন করেছেন।

সাংবাদিক সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন লোহাগাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ও লোহাগাড়া সদর ইউপি চেয়ারম্যান আলহাজ্ব নুরুচ্ছফা চৌধুরী, তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক সাইফুল আলম চৌধুরী, নির্বাহী সদস্য এস.এম আব্দুল জব্বার, নির্বাহী সদস্য ও পদুয়া ইউপি চেয়ারম্যান জহির উদ্দিন, চুনতি ইউপি চেয়ারম্যান জয়নুল আবেদীন জনু কোম্পানী, দক্ষিণ জেলা আওয়ামী যুবলীগের তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক মিয়া মুহাম্মদ শাহজাহান, উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের আহবায়ক জহির উদ্দিন, যুগ্ম-আহবায়ক ফজলে এলাহী আরজু, উপজেলা যুবলীগ নেতা বাদশা খালেদ, যুবলীগ নেতা আক্তার কামাল পারভেজ, চরম্বা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি ও চরম্বা ইউপি চেয়ারম্যান মাষ্টার শফিকুর রহমান, কলাউজান ইউপি চেয়ারম্যান এম.এ ওয়াহেদ, পুটিবিলা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হাজ্বী মুহাম্মদ ইউনুচ, চরম্বা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আসহাব উদ্দিন, উপজেলা ছাত্রলীগের যুগ্ম-আহবায়ক মিজানুর রহমান ও যুগ্ম-আহবায়ক মোরশেদুল আলম নিবিলসহ প্রমূখ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*