ব্রেকিং নিউজ
Home | সাহিত্য পাতা | ডাঃ ফরিদা ইয়াসমিন সুমি’র ৩টি কবিতা

ডাঃ ফরিদা ইয়াসমিন সুমি’র ৩টি কবিতা

551

অমলিন

কিছু কিছু বন্ধন মলিন হয়না কখনো
সময়ের আবর্তনে গায়ে পড়েনা ধূলো!
তাইতো পৃথিবী আজো ধ্রুবতারার মত
দিকের সন্ধান দিয়ে চলে!

কিছু সম্পর্ক পুরোনো হয়না কখনো
সময়ের সাথে ফিকে হয়ে আসেনা রঙ!
তাইতো ধরনী আজো নানারঙের মিছিলে
রঙধনু রঙে সাজে!

কিছু আলিঙ্গন শিথিল হয়না কখনো
সময়ের বিবর্তনে ছিন্ন হয়না মায়াজাল!
তাইতো বসুধায় আজো মানে অভিমানে
প্রেমিকার বুক ভাসে জলে!

কিছু কিছু আঁকড়ে ধরা হাত অবিশ্বাসী হয়না কখনো
সময়ের যাত্রায় আলগা হয়না আঙুল!
তাইতো এ ধরায় আজো ফুলের বুকে পড়ে
কাঁপে প্রেমিক ভ্রমর!


ডুবছি, ভাসছি, ডুবছি

জোছনা -শিশিরে আতরের গন্ধ ছড়ানো স্বপ্নভরা মধুরাত শেষে
চাঁদটাও পথ ভুলে চলে যায় অন্য কোনো পথে,
অভিষেক ঘটে যৌবনোচ্ছল দিবসের!
ভোরের গান শেষে গাছে গাছে পাখিদের প্রভাতী – শোরগোল নিস্তব্ধ -প্রায়!
মন -প্রাণ ভরে ওঠে স্নিগ্ধ, শান্ত, কোমল নির্জনতার এক পবিত্র সুখাবেশে!
জীবনের আয়োজন হঠাৎই বড় বেশি মায়াবি আর রহস্যময় মনে হয়!
গাছের পাতায় বাতাসের শিহরণ সোনালি সূর্যালোকে ঝলকে ঝলকে ওঠে!
আকাশের সুনীল সমুদ্রে সাঁতার কেটে কেটে সূর্যটা যেনো বড্ড ক্লান্ত আজ,
ভাসতে ভাসতে পরবাসী হয়ে যায় বকের মত ঘন – শাদা মেঘ!
গিরিপথের মত বাঁক নিয়ে হারিয়ে যাওয়া সরু শৈবালিনীর জলে
নিজের ঘুমভাঙা নিটোল মুখখানা দেখার চেষ্টা করে ব্যর্থ হই!
ছোট ছোট ঢেউ ছায়া ছায়া প্রতিবিম্বকে স্থির হয়ে দাঁড়াতে দেয়না যেনো,
ভাসিয়ে নিয়ে যায় অজানা নিরুদ্দেশের পথে!
আঙুল বাড়িয়ে ছুঁয়ে দেই জলের ভেতর তিরতির করে কাঁপতে থাকা স্বপ্নালু চোখ,
আঁজলা -পানিতে ভিজিয়ে দেই বাহু, গ্রীবা আর চুপচাপ পড়ে থাকা বুকের নিপাট ভাঁজটাও!
আর্দ্র বাতাসের ঝাপটায় পুঁইডাঁটার মত সতেজ হয়ে দুলে দুলে ওঠে দেহলতা!
টিমটিম করে জ্বলতে থাকা বাতির উসকে দেয়া সলতের মত চঞ্চল হয়ে ওঠে মন!
বাতাস লাগা উদোম বুকের মত কিংবা
অন্তর ভিজে যাওয়া ভারি বর্ষণের মত
মৌন মগ্নতায় অনায়েসে ডুবে যেতে থাকি,
আহা,
ডুবছি, ডুবছি, ডুবছি…
ভাসছি, ভাসছি, ভাসছি…


মানুষের কাহিনী পুরোনো হয়না কখনো

মানুষের মাঝেই মানুষের কাহিনী বেঁচে থাকে
হোক না যতো পরিচিত কিংবা সাদামাটা
মানুষের কাহিনী কখনো পুরোনো হয়না!
উষ্ণ সান্নিধ্যে পরম তৃপ্তিতে নিশিযাপন পরেও
অবলীলায় সূর্যালোকে যৌবনের দীপ্তি খুঁজে ফেরে,
মানুষের কাহিনী পুরোনো হয়না কখনো।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*