Home | শিক্ষাঙ্গন | এসএসসি পরীক্ষার ফরমপূরণে নির্দেশনা উপেক্ষা করে অতিরিক্ত ফি আদায়ের অভিযোগ

এসএসসি পরীক্ষার ফরমপূরণে নির্দেশনা উপেক্ষা করে অতিরিক্ত ফি আদায়ের অভিযোগ

চট্টগ্রাম-শিক্ষাবোর্ডে

নিউজ ডেক্স : মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট (এসএসসি) পরীক্ষার ফরমপূরণে নির্দেশনা উপেক্ষা করে চারগুণেরও বেশি ফি’র আদায়ের অভিযোগ উঠেছে চট্টগ্রাম শিক্ষাবোর্ডের অধিভুক্ত বেশ কয়েকটি মাধ্যমিক স্কুল কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে। এ সংক্রান্ত ১৫টির অধিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেছে ভূক্তভোগী শিক্ষার্থীর অভিভাবকেরা।

এদিকে, এসএসসির ফরমপূরণে নৈরাজ্য ঠেকাতে ৪ সদস্যের একটি তদন্ত কমিটি গঠন করেছে শিক্ষাবোর্ড কর্তৃপক্ষ।

ইতিমধ্যে এ কমিটির সদস্যরা অভিযুক্ত এসব স্কুলের বিরুদ্ধে তদন্ত নেমেছে বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্টরা।

চট্টগ্রাম শিক্ষাবোর্ডের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক মো. মাহবুব হাসান বলেন, ‘২০১৮ সালের এসএসসির ফরমপূরণের জন্য ফি নির্ধারণ করে দেয়া হয়েছে। কোন অবস্থাতেই বোর্ড নির্ধারিত ফি’র চেয়ে অতিরিক্ত টাকা নেওয়া যাবে না। এ বিষয়ে মহামান্য হাইকোর্টেরও একটি নির্দেশনা রয়েছে। এসএসসি’র বিজ্ঞান বিভাগে নিয়মিত শিক্ষার্থীর কাছ থেকে কেন্দ্র ও ব্যবহারিক ফি‘সহ সর্ব্বোচ্চ ২ হাজার ৩২০ টাকা ও অনিয়মিত ২ হাজার ৪২০ টাকা, ব্যবসায় শিক্ষা শাখায় নিয়মিত শিক্ষার্থীর কাছ থেকে কেন্দ্র ও ব্যবহারিক ফি‘সহ সর্ব্বোচ্চ ১ হাজার ৯০০ টাকা ও অনিয়মিত ২ হাজার টাকা এবং মানবিক বিভাগের নিয়মিত শিক্ষার্থীর কাছ থেকে কেন্দ্র ও ব্যবহারিক ফি‘সহ সর্ব্বোচ্চ ১ হাজার ৯০০ টাকা ও অনিয়মিত ২ হাজার টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে।’

তিনি আরও জানান, ব্যবসা শিক্ষা ও মানবিক বিভাগের পরীক্ষার্থীদের ক্ষেত্রে আইসিটি বিষয় ব্যতীত অন্য কোন ব্যবহারিক বিষয় না থাকলে তাদের কাছ থেকে ব্যবহারিক ফি ১১৫ টাকার পরিবর্তে শুধুমাত্র ২৫ টাকা আদায় করতে হবে। ফরমপূরণে বিলম্ব হলে অতিরিক্ত ১০০ টাকা আদয়ের সুযোগ রয়েছে। এর বাইরে অতিরিক্ত টাকা নেওয়া যাবে না।

শিক্ষাবোর্ড সূত্রে জানা যায়, শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে বোর্ড নির্ধারিত ফি‘ চেয়ে তিন থেকে চারগুণ টাকা আদায়ের অভিযোগ তুলেছে ভূক্তভোগী অভিভাবকেরা। এরমধ্যে নগরীর ষোলশহর পাবলিক উচ্চ বিদ্যালয়, বাংলাদেশ রেলওয়ে স্টেশন কলোনি উচ্চ বিদ্যালয়, হাতেকড়ি স্কুল, সাতকানিয়া উপজেলার  দুরদুরি উচ্চ বিদ্যালয়, আনোয়ারা উপজেলার ৪ নম্বর বটতলী পিএনসি উচ্চ বিদ্যালয়, চকরিয়া উপজেলার কিশলয় আদর্শ শিক্ষা নিকেতন, সীতাকুণ্ড উপজেলার কুমিরা আবাসিক বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় ও হাজী টিএনসি উচ্চ বিদ্যালয়, মিরসরাই উপজেলার আবুরহাট উচ্চ বিদ্যালয় ও মেহেরুন্নেছা ফয়েজ উচ্চ বিদ্যালয়ের বিরুদ্ধে শিক্ষাবোর্ডে লিখিত অভিযোগ দেওয়া হয়েছে।

এসব স্কুলে এসএসসির ফরমপূরণে ৩ হাজার থেকে ১২ হাজার টাকা পর্যন্ত আদায়ের অভিযোগ তুলেছে ভূক্তভোগী শিক্ষার্থীর অভিভাবকেরা। বোর্ডের নিদের্শনাকে অমান্য করে এসব মাধ্যমিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠান কর্তৃপক্ষ অতিরিক্ত টাকা আদায় বন্ধে শিক্ষাবোর্ডের শরণাপন্ন হয়েছেন তারা।

চট্টগ্রাম শিক্ষাবোর্ডের উপ-পরিচালক ও বোর্ডের তদন্ত কমিটির প্রধান শওকত আলম জানান, বেশ কিছু শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এসএসসি’র ফরমপূরণে শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে বোর্ড নির্ধারিত ফি’র চেয়ে কয়েকগুণ বেশি আদায় করছে। এরূপ একাধিক অভিযোগ আমাদের কাছে জমা হয়েছে। ইতিমধ্যে বেশ কয়েকটি স্কুলে আমরা তদন্ত করেছি। এমনও অভিযোগ রয়েছে এসএসসির নির্বাচনী পরীক্ষায় এক বা একাধিক বিষয়ে অকৃতকার্য হওয়া শিক্ষার্থীর কাছ থেকে নানা অজুহাত দেখিয়ে অতিরিক্ত টাকা আদায় করছে। যা ভর্তি নীতিমালার বাইরে। অভিযুক্ত এসব স্কুলের বিরুদ্ধে তদন্ত শেষ হলেই, তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেয়া হবে।

কোন অজুহাতে অতিরিক্ত টাকা আদায় করতে দেয়া হবে না জানিয়ে চট্টগ্রাম শিক্ষাবোর্ডের চেয়ারম্যান অধ্যাপক শাহেদা ইসলাম জানান, ভর্তি নীতিমালা অনুসরণ না করে যেসব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে এসএসসির ফরমপূরণে অতিরিক্ত টাকা আদায় করবে, সেই সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের পাঠদানের স্বীকৃতি বাতিল করা হবে। ইতিমধ্যে বোর্ডের তদন্ত টিম অভিযুক্ত স্কুলগুলোর বিরুদ্ধে তদন্ত শুরু করেছে। অভিযোগ প্রমানিত হলেই ব্যবস্থা নেয়া হবে। কোন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানকে এসব বিষয়ে ছাড় দেয়া হবে না। -বাংলানিউজ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*