ব্রেকিং নিউজ
Home | উন্মুক্ত পাতা | লোহাগাড়া মা-মনি হাসপাতালে আমার রাজকন্যার জন্ম

লোহাগাড়া মা-মনি হাসপাতালে আমার রাজকন্যার জন্ম

616

মারুফ খান : নতুন অনুভুতি, নতুন আবেগ, নতুন ভালোবাসা ও নতুন বন্ধন নিয়ে লোহাগাড়া মা-মনি হাসপাতালে গত ২৮ অক্টোবর রাত ৮.২০ মিনিটে পৃথিবী নামক গ্রহে শুভাগমন করেছেন আমার রাজকন্যা। শুভাগমনের আগের মুহুর্তগুলো ছোট ছোট আতংকের দ্বীপ হলেও সু-খবর পাবার মুহুর্তেই আনন্দের জোয়ারে আতংকের দ্বীপগুলো বিলীন হয়ে যায়। সেই এক পবিত্র অনুভুতি। আহা কি আনন্দ আকাশে-বাতাসে।

প্রথমে কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি মহাবিশ্বের মালিক মহান রাব্বুল আলামিনের নিকট। যিনি মা-মেয়েকে সুস্থ রেখে স্বাভাবিক নিয়মে ডেলিভারী কার্যক্রম সম্পন্ন করেছেন।

এরপর কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি লোহাগাড়া মা-মনি হাসপাতালের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মামা এম. এ. কাশেমের প্রতি। যিনি সার্বক্ষণিক খোঁজ-খবর নিয়েছেন এবং সাহস দিয়েছেন। কারণে-অকারণে অনেক বিরক্ত করেছি তাঁকে। কিন্তু তিনি এক মুহুর্তের জন্যও বিরক্ত হননি। বরং ভালোবাসা দেখিয়েছেন।

কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি লোহাগাড়া মা-মনি হাসপাতালের ব্যবস্থাপনা পরিচালক এম. এ. কাশেমের সহধর্মীনি মামী ফরিদা ফারিয়ার প্রতি। তিনিও সার্বক্ষণিক খোঁজ-খবর নিয়েছেন এবং সাহস দিয়েছেন। শুধু তা নয়, পুরো ডেলিভারী কার্যক্রমে আমার সহধর্মীনির পাশে থেকে তাকেও সাহস ও ভালোবাসা দিয়েছেন।

কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি লোহাগাড়া মা-মনি হাসপাতালের ডাক্তার জান্নাত আরার প্রতি। যিনি হাসি-মুখে সুন্দরভাবে কথা বলে রোগী ও রোগীর স্বজনদের মন আকৃষ্ট করে নেয়। একজন চিকিৎসক হয়েও তাঁর কাছে নেই কোন অহংকার। এছাড়াও লোহাগাড়া মা-মনি হাসপাতালে কর্মরত সাংবাদিক এ.আর মাসুদ, খালিদ বিন আলীসহ নার্সদের প্রতি। অনেক বিরক্ত করেছি তাদেরকে। মূলতঃ নিজের তত্ত্বাবধানে কাউকে প্রথম আমি হাসপাতালের ভর্তি করলাম। তাই আমার অনেক কিছু অজানা ছিল।

কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি লোহাগাড়া ডায়াবেটিক জেনারেল হাসপাতালের রাশেদুল হক ভাইয়ের প্রতি। এছাড়াও কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি ওই হাসপাতালে কর্মরত ডাক্তার নাহিদা জাফরিন ও ডাক্তার আর্শিয়া মরজান মিলির প্রতি। আমার রাজকন্যা গর্ভধারণের পর থেকে আমার সহধর্মীনি তাদের কাছ থেকে চিকিৎসাসেবা নিয়েছে।

কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি আমার পরিবারের লোকজন, আত্মীয়-স্বজন, বন্ধু-বান্ধব ও শুভানুধ্যায়ীদের প্রতি। যাঁরা প্রতি মুহুর্ত খোঁজ-খবর নিয়েছেন এবং সাহস দিয়েছেন।

আমার রাজ্যের রাজকন্যাকে ডাক্তার, ইঞ্জিনিয়ার, জজ, ব্যারিষ্টার হবার লক্ষ্য বা টার্গেট দিবো না। আমি তাঁকে একটিই লক্ষ্য দিবো শুধু ‘মানুষ’ হবার জন্য। যাতে ‘মানুষ’ হয়ে নিজেকে মানবসেবায় নিয়োজিত করতে পারেন। লক্ষ্য থিতু রেখে পরিশ্রম করলে অবশ্যই সফলতা আসবে। জয় হোক মানবতা। লক্ষ্যে পৌঁছতে আমার রাজকন্যার জন্য সকলের কাছে দোয়া প্রার্থী।

লেখক : প্রকাশক, lohagaranews24.com

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*