Home | ব্রেকিং নিউজ | লোহাগাড়ায় আওয়ামী লীগের বর্ধিত সভায় অতীতের ভুলের জন্য ড. নদভীর পক্ষে ক্ষমা চেয়েছেন মোছলেম উদ্দিন

লোহাগাড়ায় আওয়ামী লীগের বর্ধিত সভায় অতীতের ভুলের জন্য ড. নদভীর পক্ষে ক্ষমা চেয়েছেন মোছলেম উদ্দিন

received_2186758958025216

এলনিউজ২৪ডটকম : “ঐক্যবদ্ধ হোন, নৌকার বিজয় নিশ্চিত করুন” এ শ্লোগানকে সামনে রেখে চট্টগ্রাম-১৫ (সাতকানিয়া- লোহাগাড়া) আসনের আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী প্রফেসর ড. আবু রেজা মুহাম্মদ নেজামুদ্দীন নদভীর সমর্থনে আয়োজিত লোহাগাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের বিশেষ বর্ধিত সভায় প্রধান অতিথি চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি জননেতা মোছলেম উদ্দিন আহমদ বলেছেন, প্রথমেই জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি হিসেবে আপনাদের এমপি নদভীর অতীতের সব ভুল-ভ্রান্তির জন্য আমি ক্ষমা চেয়ে নিচ্ছি। তারপরও নৌকার বিজয়ে সকল ভেদাভেদ ভুলে ঐক্যবদ্ধভাবে করুন। নদভীর অনেক ভূলভ্রান্তি হয়েছে মানি, কিন্তু তিনি অনেক ভালো কাজও করেছেন। তিনি আরো বলেন, বিগত ৬০ বছরে সাতকানিয়া- লোহাগাড়ায় তেমন কোন উন্নয়ন হয়নি। গত ১০ বছরে আওয়ামী লীগ সরকারের আমলে অনেক উন্নয়ন হয়েছে। বাংলাদেশের কোথাও গেলে সাতকানিয়া-লোহাগাড়ার কথা উঠলেই রাজাকারের এলাকা হিসেবে ট্টিট করে পরিহাস করে, এটা আমাদের খুবই দুঃখ লাগে। এ সময় আমাদের মাথা নিচু করে থাকতে হয়। আসন্ন নির্বাচনে সকল ভেদাভেদ ভুলে গিয়ে ঐক্যবদ্ধভাবে নৌকার বিজয় নিশ্চিত করে এ কলংঙ্ক মুছে দিতে হবে আপনাদের। প্রার্থীকে পছন্দ না হলে চেহেরা দেখার দরকার নেই, নৌকা প্রতীকে ভোট দিয়ে শেখ হাসিনাকে আবারো ক্ষমতায় আনতে হবে। এটি বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনার নির্দেশ। তিনি আরো বলেন, দক্ষিণ চট্টগ্রামের ৬টি আসন উপহার দেয়ার প্রতিজ্ঞা করেছি শেখ হাসিনার কাছে। সে প্রতিজ্ঞা পূরণ করতে সকল নেতাকর্মীদের জীবন বাজী রেখে কাজ করতে হবে। আজ ১ ডিসেম্বর শনিবার সন্ধ্যা ৬টায় স্থানীয় সিটিজেন পার্ক কমিউনিটি সেন্টারে লোহাগাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগ আয়োজিত বিশেষ বর্ধিত সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।
উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি খোরশেদ আলম চৌধুরীর সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক সালাহ উদ্দিন হিরুর সঞ্চালনায় এতে প্রধান বক্তা ছিলেন চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মফিজুর রহমান। বক্তব্য রাখেন চট্টগ্রাম-১৫ আসনের আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী প্রফেসর ড. আবু রেজা মুহাম্মাদ নেজামুদ্দীন নদভী, দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সহ- সভাপতি এম. ইদ্রিস, এড. একেএম সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী, ছাত্রলীগের সাবেক কেন্দ্রীয় সভাপতি মাঈনুদ্দিন হাসান চৌধুরী, কেন্দ্রীয় মহিলা আওয়ামী লীগের সদস্য নারীনেত্রী রিজিয়া রেজা চৌধুরী, এড. কামরুন্নাহার, এড. হুমায়ুন কবির রাসেল, চট্টগ্রাম জেলা পরিষদ সদস্য আনোয়ার কামাল চৌধুরী, আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় উপ-কমিটির সহ-সম্পাদক আবু বক্কর ছিদ্দিক, লোহাগাড়া সদর ইউপি চেয়ারম্যান নুরুচ্ছাফা চৌধুরী, জান মো. সিকদার, লোহাগাড়া প্রেসক্লাব সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা নুরুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক আবুল কালাম আজাদ, এইচএম গণি সম্রাট, আবদুল জব্বার, পদুয়া ইউপি চেয়ারম্যান জহির উদ্দিন, উপজেলা যুবলীগের সভাপতি জহির চৌধুরী, যুগ্ম আহবায়ক ফজলে এলাহী আরজু, কলাউজান ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ সভাপতি গাজী ইছহাক মিয়া, চরম্বা ইউনিয়ন সাধারণ সম্পাদক আসহাব উদ্দিন, স্বেচ্ছাসেবক লীগের যুগ্ম আহবায়ক আবছার উদ্দিন, শ্রমিকলীগের সভাপতি ফরিদ উদ্দিন, ছাত্রলীগের সাবেক যুগ্ম আহবায়ক মিজানুর রহমান ও মোরশেদুল আলম নিবিল প্রমুখ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*