Home | সাহিত্য পাতা | অামি ঘুম ভাঙা ভোর

অামি ঘুম ভাঙা ভোর

604

______ফিরোজা সামাদ______

পাহাড়ের পাদদেশে ধানের শিষে
ঝিরঝিরে বাতাস আমি,
বয়ে যাই বনাঞ্চলে মেঘ রোদ্দুর প্রান্তরে,
দূর থেকে ভেসে আসা বুনোফুলের গন্ধ
শুঁকে নেই মন ভরে,
স্নান করে নেই শ্যাওলা জমা পুকুর জলে,
অামার প্রতিবিম্ব ছায়া ফেলে শান্তির কিনারে ,
একটুকড়ো মেঘ বয়ে নিয়ে অাসে বৃষ্টির সুঘ্রাণ,
মন আকুল করে অামার,
সে ব্যথা ঢেকে রাখি হৃদয় গহীনে,
কিন্তু নির্মম সাক্ষ্য দেয় নিজেরই আঁখিপল্লব !!

হৃদয় তোমার কোন সুরে বাঁধা বলো ?
কেনো পায়নি ঠাঁই মেঘ রোদ্দুর ?
কেনো অচেনা ফুলের গন্ধ পাওনা তুমি ?
বনাঞ্চল পেরিয়ে অাসা বাতাসের হু-হু ক্রন্দন
কেনো শুনতে পাওনা তুমি ?
নির্জনে মৃদু্মন্দ হাওয়ার বুকে কান পেতে শোনো,
ওরা নিরবে বলে যায় অামারই নাম,
যে মেঘ এসে ঢেকে দেয় তাপিত সূর্যকে,
তখন তুমি থেকে গেয়ে নিও বর্ষার কোনো গান !!

শরতে শুভ্র কাশবনে সারাবেলা
লুকোচুরি খেলা শেষ,
এখন হেমন্তের পাকা ফসলের মঁ মঁ গন্ধ,
ফসল মাড়াই অামার আঙিনায়,
অাজ নবান্নের নিমন্ত্রণ তোমায় ,
পৌষালি শীতে ভোর প্রভাতের রেশমী রোদের
ওম ওম অাদর পেরিয়ে ফাগুন বসন্তে ফোটা ফুল
কোকিলের কাছে মিনতি জানায়,
সে যেনো কুহু কুহু রবে পৌঁছে দেয়
আমার মন খারাপের বারতা,
তোমার ঘুম ভাঙা ভোরের দ্বারপ্রান্তে !!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*