Home | দেশ-বিদেশের সংবাদ | চট্টগ্রামে হিযবুত তাহরীরের নেতৃত্বে ক্যান্টনমেন্ট স্কুলের শিক্ষক!

চট্টগ্রামে হিযবুত তাহরীরের নেতৃত্বে ক্যান্টনমেন্ট স্কুলের শিক্ষক!

image_printপ্রিন্ট করুন

hizbut-20191123123933

নিউজ ডেক্স : নিষিদ্ধ ঘোষিত জঙ্গি সংগঠন হিযবুত তাহরীরের চট্টগ্রাম আঞ্চলিক প্রধানসহ সংগঠনটির ১৫ নেতাকর্মীকে আটক করেছে পুলিশ। তাদের মধ্যে আটক কথিত আঞ্চলিক প্রধান এরশাদুল আলম (৩৯) চট্টগ্রামের ক্যান্টনমেন্ট ইংলিশ স্কুল ও কলেজের সহকারী শিক্ষক হিসেবে কর্মরত বলে নিশ্চিত করেছে আইন-শৃংখলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা।

শুক্রবার (২২ নভেম্বর) সন্ধ্যা থেকে মধ্যরাত পর্যন্ত নগরের বিভিন্নস্থানে পুলিশের আলাদা ৭টি টিম সাঁড়াশি অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন অভিযানে নেতৃত্ব দেয়া নগর পুলিশের অতিরিক্ত উপ-কমিশনার (এডিসি-দক্ষিণ) শাহ মো. আব্দুর রউফ।

তিনি বলেন, ‘গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পুলিশের ৭টি টিম নগরজুড়ে অভিযান পরিচালনা করে। অভিযানে হিযবুত তাহরীরের আঞ্চলিক প্রধানসহ আরও কয়েকজনকে আটক করা হয়েছে। এ সময় তাদের কাছ থেকে ল্যাপটপ, মোবাইল, জিহাদি বই ও লিফলেট উদ্ধার করা হয়।’

অভিযানে অংশ নেয়া এক পুলিশ কর্মকর্তা জানান, ‘আটক ১৫ জনের মধ্যে ১৩ জনকে চান্দগাঁও আবাসিক এলাকার একটি বাসায় বৈঠকরত অবস্থায় এবং বাকি দুইজনকে বায়েজিদ থানা এলাকার একটি বাসা থেকে আটক করা হয়। তাদের মধ্যে আঞ্চলিক প্রধান এরশাদুল আলম চট্টগ্রামের ক্যান্টনমেন্ট ইংলিশ স্কুল ও কলেজের সহকারী শিক্ষক হিসেবে কর্মরত রয়েছেন। সিএমপির ৭টি টিম সন্ধ্যা সাতটা থেকে নগরজুড়ে এ অভিযান পরিচালনা করে।’

আটক অন্যান্যরা হলেন ওয়ালিদ ইবনে নাজিম (১৮), ইমতিয়াজ ইসমাইল (২৫), আব্দুল্লাহ আল মাহফুজ (৩০), নাসিরুদ্দিন চৌধুরী (২৯), নাজমুল হুদা (২৭), লোকমান গণি (২৯), মোহাম্মাদ করিম (২৭), আব্দুল্লাহ আল মুনিম (২২), কামরুল হাসান রানা (২০), আরিফুল ইসলাম (২০), আজিমুদ্দিন (৩১), মো. আজিমুল হুদা (২৪), আফজাল হোসেন আতিক (৩৫) ও মো. সম্রাট (২২)।

কোতোয়ালি থানার ওসি মোহাম্মদ মহসিন জানান, গত প্রায় ছয়মাস ধরে এই চক্রটির ওপর নজর রাখে নগর গোয়েন্দা পুলিশ। গতকাল (শুক্রবার) সাত দলে ভাগ হয়ে ৫০ জন পুলিশ সদস্য এ অভিযানে অংশ নেয়।

সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক সাময়িকী কাউন্টার টেররিজম এক্সচেঞ্জে (সিটিএক্স) প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে জানানো হয়, জঙ্গি সংগঠন ইসলামিক স্টেটের (আইএস) চেয়েও ভবিষ্যতে বিপজ্জনক হয়ে উঠতে পারে জঙ্গি সংগঠন হিযবুত তাহরীর। নিষিদ্ধ এ সংগঠন বিশ্বজুড়ে নিরাপত্তা ও গোয়েন্দা কর্মকর্তাদের নজরদারি চাতুর্যের সঙ্গে এড়িয়ে তাদের কর্মকাণ্ড চালিয়ে যাচ্ছে।

ওই প্রতিবেদনে আরও বলা হয়, হিযবুত তাহরীরের একটি সামরিক শাখা রয়েছে। এর নাম হরকত-উল-মুহোজিরিনফি ব্রিটানিয়া।১৯৫২ সালে জেরুজালেমে প্রতিষ্ঠিত এ দলটির সদর দফতর লন্ডনে। মধ্য এশিয়া, ইউরোপ, দক্ষিণ এশিয়া এবং দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ায় (মূলত ইন্দোনেশিয়া) এর শাখা রয়েছে। দক্ষিণ এশিয়ার ভেতর পাকিস্তান ও বাংলাদেশেও সংগঠনটির ব্যাপক উপস্থিতি রয়েছে। -জাগো নিউজ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

error: Content is protected !!