Home | দেশ-বিদেশের সংবাদ | ৬৩২ পাতার রায়ের কপি তৈরি করতে সময় লাগে : আইনমন্ত্রী

৬৩২ পাতার রায়ের কপি তৈরি করতে সময় লাগে : আইনমন্ত্রী

image_printপ্রিন্ট করুন

55632_54749_anusul-haque-

নিউজ ডেক্স : বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট মামলার রায়ের অনুলিপি প্রস্তুত করতে সময় প্রয়োজন ভলে জানিয়েছেন আইনমন্ত্রী আনিসুল হক। তিনি বলেন, ‘আমি একজন আইনজীবী হিসেবে এটুকু জানি-বুঝি ৬৩২ পাতা তৈরি করতে একু-আধটু সময় লাগে। আনরিজনেবল দেরি করাটা ঠিক না। রিজনেবল টাইম যদি নেয়, তাকে সেই সময় দিতে হবে।’

রবিবার (১৮ ফেব্রুয়ারি) রাজধানীর সিরডাপ মিলনায়তনে এক অনুষ্ঠানে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে আইনমন্ত্রী এ কথা বলেন।

আইনমন্ত্রী বলেন, ‘একটা রায়ের কপি পেতে হলে রায়টা কত বড় সেটার উপর নির্ভর করে কত তাড়াতাড়ি রায়ের কপি দেয়া হবে। একটা ক্ষেত্রেই শুধু এই আইন ও এই পদ্ধতির ব্যতয় ঘটে, সেটা হচ্ছে কোনো আসামিকে যদি মৃত্যুদণ্ড দেওয়া হয়। তাহলে বলাই আছে, তিনিই একমাত্র দাবিদার ২৪ ঘণ্টার মধ্যে রায়ের কপি পাওয়ার। আর আসামিকে অন্যান্য সাজা দেওয়া হলে তখন একটা যুক্তিসঙ্গত সময়ে রায়ের সার্টিফাইড কপি দেওয়া হয় তাকে।’

বিএনপি সরকারের প্রসঙ্গ উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, ‘মওদুদ আহমদ সাহেব আইনমন্ত্রী থাকাকালীন আমরা বঙ্গবন্ধু হত্যার বিচার পাইনি। মওদুদ আহমেদ সাহেব সরকারে থাকাকালীন ইনডেমনিটি অর্ডিনেন্স বাতিল করার কোনো পদক্ষেপ পাই নাই।’

উল্লেখ্য, গত ৮ ফেব্রুয়ারি রাজধানীর বকশীবাজারের আলিয়া মাদরাসা মাঠে স্থাপিত ঢাকার ৫ নং বিশেষ জজ ড. আখতারুজ্জামান এ মামলায় খালেদা জিয়াকে ৫ বছরের কারাদণ্ড দিয়ে রায় ঘোষণা করেন। রায়ে তারেক রহমানসহ বাকিদের ১০ বছরের কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। রায় ঘোষণার পর ওই দিনই কড়া নিরাপত্তায় খালেদা জিয়াকে ঢাকার নাজিমউদ্দিন রোডের পুরনো কেন্দ্রীয় কারাগারে নেয়া হয়। বর্তমানে তিনি সেখানেই বন্দী আছেন। ৬৩২ পৃষ্ঠার এই রায়ের অনুলিপি পেলে হাইকোর্টে আপিল করে জামিনের আবেদন জানাবেন খালেদা জিয়া।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

error: Content is protected !!