Home | দেশ-বিদেশের সংবাদ | বাংলাদেশি পাসপোর্ট নিয়ে সৌদি যাওয়ার চেষ্টায় রোহিঙ্গা নারীরা

বাংলাদেশি পাসপোর্ট নিয়ে সৌদি যাওয়ার চেষ্টায় রোহিঙ্গা নারীরা

image_printপ্রিন্ট করুন

K H Manik Pic 18-12-2017 (5)

কায়সার হামিদ মানিক, উখিয়া : বাংলাদেশি পাসপোর্ট ব্যবহার করে আবারো বিদেশে অভিবাসন সুবিধা নেয়ার চেষ্টা করছে মিয়ানমার থেকে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গারা। বিশেষ করে সৌদি আরবে নারী শ্রমিক হিসাবে যাওয়ার প্রবণতাই বেশি। মিথ্যা পরিচয়ে যাওয়া এসব রোহিঙ্গাদের কারণে বিভিন্ন দেশে প্রকৃত বাংলাদেশিরা অভিবাসন সুবিধা থেকে বঞ্চিত হচ্ছে। শুধুমাত্র রোহিঙ্গাদের এ ধরণের সুবিধা দিতে গিয়ে আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর হাতে আটক হয়েছে ৫৫২ জন দালাল। এ অবস্থায় জরুরী পাসপোর্ট দেয়ার ক্ষেত্রে আরো বেশি কঠোর হওয়ার কথা বলছে পুলিশ প্রশাসন। গত কয়েকদিন আগে গৃহপরিচারিকার ভিসায় সৌদি আরব যাওয়ার ঠিক আগ মুহূর্তে জনশক্তি অধিদপ্তরে আটক হয় সেতারা বেগম এবং নাজিবাহ বেগম শিউলি নামে দু’রোহিঙ্গা নারী। তারা বাংলাদেশি হিসাবে শুধুই যে পাসপোর্ট তৈরি করেছিলো তাই নয় ভিসাসহ সব কাগজ-পত্র তৈরি করে ফেলে। পরবর্তীতে তাদের কক্সবাজারের উখিয়ায় বসবাসরত পরিবারের কাছে হস্তান্তরের পাশাপাশি পাসপোর্ট দু’টিও বাতিল করা হয়। সেতারা ও শিউলির মতো অনেক রোহিঙ্গাই বাংলাদেশি পাসপোর্ট নিয়ে বিদেশ চলে যাচ্ছে। স্থানীয় তথ্য অনুযায়ী গত এক দশকে অন্তত আড়াই লাখ রোহিঙ্গা সৌদি আরব ও মালয়েশিয়া চলে গেছে। কিন্তু সাম্প্রতিক সময়ে দালালদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নিয়েও রোহিঙ্গাদের ক্যাম্প ছাড়ার প্রবণতা রোধ করা যাচ্ছে না। নিরাপত্তা বিশ্লেষকদের মতে, বাংলাদেশী পাসপোর্টধারী রোহিঙ্গাদের অপরাধ প্রবণতার কারণে বিদেশের মাটিতে প্রকৃত বাংলাদেশীদের মারাত্মক সমস্যায় পড়তে হচ্ছে। এ অবস্থায় রোহিঙ্গাদের বাংলাদেশী পাসপোর্ট পাওয়া ঠেকাতে জরুরী পাসপোর্ট পাওয়ার বিধান কঠোর করার সুপারিশ করছেন চট্টগ্রাম বিভাগের শীর্ষ এই পুলিশ কর্মকর্তা। চলতি বছরের প্রথম ১১ মাসে বাংলাদেশ থেকে ১ লাখ ১৩ হাজার নারী শ্রমিক বিদেশ গেছে। এর মধ্যে সৌদি আরবে গৃহ পরিচারিকা হিসাবে গেছে ৭৬ হাজার । আর চট্টগ্রাম থেকেই নারী শ্রমিক বিদেশ গেছে ১ হাজার ৩শ ৮৭ জন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

error: Content is protected !!