ব্রেকিং নিউজ
Home | উন্মুক্ত পাতা | প্রবাসী এম নুরুল আমিন’র কথা…

প্রবাসী এম নুরুল আমিন’র কথা…

25

প্রবাসীর উদগ্রীব মন ও পত্রিকার বর্ষপূর্তি এবং একটি উদ্যমী বার্তা….!

লোহাগাড়া থনার পুটিবিলা ইউনিয়নের তাঁতী পাড়া আমার গ্রাম, আমি সৌদি প্রবাসী, প্রবাস জীবনের শত ব্যস্ততার মাঝেও হূদয় পড়ে থাকে আমার প্রিয় জম্মস্থান লোহাগাড়ায়। লোহাগাড়ার খবরাখবর জানতে মনটা উদগ্রীব হয়ে থাকে।

প্রবাস জীবনের এই উদগ্রীব মনকে সান্ত্বনার বাণী শুনায় “লোহাগাড়া নিউজ টুয়েন্টিফোর ডটকম” মোবাইলে ক্লিক করলে দিনের তাজা খবর গুলো পেয়ে যাচ্ছি দূর প্রবাসে বসে। হূদয়কে প্রশান্ত কারী অনলাইন পত্রিকাটির ১ম বর্ষপূর্তির খবর জেনে সামান্য অনুভূতি জাগলো মনে।

যেহেতু লোহাগাড়া আমার জম্মস্থান সেহেতু লোহাগাড়া আমার অত্যন্ত প্রিয়, প্রিয় জিনিসটাকে যেকোন মানুষ খুবই সুন্দর এবং সাবলীল দেখতে চাই! আমিও তার ব্যতিক্রম নয়, আমার প্রিয় লোহাগাড়াকে আমি দেখতে চাই বাংলাদেশের অন্য দশটি থানার চেয়ে উন্নত! মানুষ গুলোকে দেখতে চাই সৎ এবং উদ্যমী……!

সৎ এবং উদ্যমী মানসিকতাই তৈরি করে দিতে পারবে আগামীর জন্য একটি প্রজন্ম যারা মানুষের কল্যাণের জন্য কাজ করবে এবং সমাজের কুসংস্কৃতিকে বিতাড়িতকে করবে।

আমি মনে করি পুরো বাংলাদেশেই একটি সংস্কৃতিক বিপ্লব দরকার, বাংলাদেশের আনাচেকানাচে যৌতুক এবং মাদকের নোংরা প্রভাব দৃশ্যমান, সেই অর্থে আমার প্রিয় লোহাগাড়া থানাটির মানুষও এই কুসংস্কৃতির বাইরে নয়, সংস্কৃতিক বিপ্লবের জন্য প্রচার প্রচারণা অত্যন্ত জরুরি, লোহাগাড়া নিউজ টুয়েন্টিফোর ডটকমকে দেখেছি কুসংস্কৃতির বিরুদ্ধে সোচ্চার হতে দেখেছি যৌতুক ও মাদকের বিরুদ্ধে কথা বলতে, আমি আশা করব যৌতুক ও মাদক সহ অন্য যেকোন সামাজিক কুসংস্কৃতির বিরুদ্ধে প্রিয় লোহাগাড়ার প্রথম অনলাইন পত্রিকা ধারাবাহিক ভূমিকা পালন করবে।

আমি যেহেতু লোহাগাড়া থানার পুটিবিলা ইউনিয়নের একজন সেহেতু সংস্কৃতিক বিপ্লব ঘটানোর জন্য আমরা কয়েকজন প্রবাসী এবং পুটিবিলা ইউনিয়নের কিছু উদ্যমী মানুষকে সাথে নিয়ে যৌতুক ও মাদকের ভয়াবহতা থেকে আগামী প্রজন্মকে বাঁচাতে সচেতনতা সৃষ্টির উদ্দেশ্যে শুরু করতে যাচ্ছি ….. “পুটিবিলা যৌতুক ও মাদক বিরোধী সচেতন নাগরিক ঐক্য পরিষদ” নামে দলমত নির্বিশেষে একটি অরাজনৈতিক সংগঠন, সংগঠনের প্রাথমিক পরিকল্পনা লোহাগাড়া নিউজ টুয়েন্টিফার ডটকমের মাধ্যমে পাঠকের কাছে পৌঁছে দিতে চাই।

“পুটিবিলা যৌতুক ও মাদক বিরোধী সম্মেলিত সচেতন নাগরিক ঐক্য পরিষদ ” এর প্রথমিক পরিকল্পনাঃ-

১. দলমত নির্বিশেষে সদস্য সংগ্রহের চেষ্টা এবং যৌতুক ও মাদক বিরোধী মনোভাবাপন্নদের সদস্য হবার প্রক্রিয়া অব্যাহত রাখা।

২. দলমত নির্বিশেষে যৌতুক ও মাদকের বিরুদ্ধে সচেতনতা সৃষ্টি এবং যৌতুকের বিরুদ্ধে ঐক্য গড়ে তোলা।

৩. ঐক্যের বৃত্তেিতে আলোচনার মাধ্যমে একটি যৌতুক ও মাদক বিরোধী সংগঠন রূপ দেয়া।

৪. সংগঠনে রূপ দেয়ার পর আলোচনার মাধ্যমে ঐক্যমতের বৃত্তিতে প্রথমেই একটি যৌতুক ও মাদক বিরোধী র‌্যলি করা।

৫. সর্বচ্চো প্রচারের জন্য পুরো পুটিবিলা ইউনিয়নে পোস্টার পেস্টুন এর মাধ্যমে যৌতুক ও মাদকের ভয়াবহতা উল্লেখ করে যৌতুক ও মাদকের বিরোধীতা প্রকাশ করা।

৬.যৌতুক ও মাদকের ভয়াবহতা সর্বাধিক প্রচারের জন্য বিভিন্ন অনুষ্ঠানে লিভলেট বিলি করা, যেমনঃ মসজিদ, মাদ্রাসা, স্কুল, সভা, সেমিনার।

৭. আলোচনার মাধ্যমে সময়ের হাত ধরে প্রয়োজনীয় উদ্যোগ গ্রহণ এবং সদস্যদের ঐক্যমতের মাধ্যমে তা বাস্তবায়ন কারা।

৮. গরীব মেয়ে অথবা ছেলে বিয়ের উপযুক্ত সময় পার করছে, অথচ বিয়ে করতে ইচ্ছুক, কিন্তু বিয়ে করতে পারছেনা, যৌতুক বা অন্য কোনো সামাজিক কারণে, তাদের বিয়ে দেয়ার ব্যপারে সংগঠনের পক্ষ হতে সাধ্যমত চেষ্টা করা।

৯. সংগঠনের যেকোন সদস্য যৌতুক বা মাদকের ব্যপারে যেকোন পরামর্শ, আলোচনা বা গঠনমূলক সমালোচনা, সংগঠনের দায়িত্ব পাপ্ত ব্যক্তির কাছে উপস্থাপন করার উমুক্ত সুযোগ দেয়া। পরামর্শ বা সমালোচনাটি কার্য নির্ধারণ কমিটি আলোচনা করে মতামত জনাবে।

১০. আমাদের কার্যক্রম হবে মুলত শান্তিপূর্ণ, ঝগড়া বা কুতর্ক করা আমাদের নয়, কাজ করতে গিয়ে আলোচনা হবে অত্যন্ত সৌজন্যতামূলক। যৌতুক ও মাদক ইসু দুটি যেহেতু সমাজের রন্ধ্রে রন্ধ্রে প্রবেশ করেছে সেহেতু খুব সতর্কতার সাথে দায়িত্ব পালন করতে হবে, বিশেষ করে মাঠ পর্যায়ে দায়িত্ব পাপ্তদের।

১১.আমাদের দৈনন্দিনের কার্যক্রম গুলো মানুষের সামনে তুলে ধরার জন্য সংগঠনের নামে ফেসবুক পেইজ খোলা হয়েছে, ফেসবুক পেইজে কার্যক্রম গুলোর আপডেট দেয়ার চেষ্টা থাকবে। যাতে করে পুটিবিলা ছাড়িয়ে আমাদের কার্যক্রমের একটি মেসেজ স্বদেশ পেরিয়ে পৌঁছে যাবে প্রবাসী হাজার হাজার বাংলা ভাষাভাষীদের কাছে, যা দেখে যৌতুক ও মাদক বিরোধী মানোভাব তৈরি হবে। ফেসবুক পেইজের (লিংক) https://mobile.facebook.com/পুটিবিলা-যৌতুক-বিরোধী-সম্মিলিত-সচেতন-নাগরিক-ঐক্য-পরিষদ-289018504570579/?ref=m_notif&notif_t=page_fan&actorid=100008079392383&notif_id=1459195916691225 আপাতত পেইজের নাম “পুটিবিলা যৌতুক বিরোধী সম্মিলিত সচেতন নাগরীক ঐক্য পরিষদ” সময় সাপেক্ষে নামটি পরিবর্তন করে মাধক শব্দটি যুক্ত করা হবে।

১২. সমাজে যৌতুক ও মাধকের থাবা কিভাবে গ্রাস করেছে প্রজন্মকে তা দৈনন্দিন প্রকাশিত নিউজ রিপোর্ট পড়লেই অনুমেয়, যৌতুক ও মাধকের বিরুদ্ধেও “পুটিবিলা যৌতুক ও মাধক বিরোধী সচেতন নাগরিক ঐক্য পরিষদ” অত্যন্ত সোচ্চার থাকবে। যাতে করে যৌতুক ও মাধক মানুষের স্বভাবিক জীবন যাত্রা ব্যহত করতে না পারে।

১৩. ঐক্যমতে পৌঁছে একটি সংগঠন তৈরি করা যতটানা কঠিন, তারচেয়ে শতগুণ বেশি কঠিন সংগঠনটি পরিচালনা করা! সংগঠনের কার্যক্রম চালাতে গেলে আর্থিক একটি দিকটা আছে। সংগঠনটি যেন কারোর একার উপর নির্ভর হতে না হয় সেই দিক বিবেচনা করে একটি সচ্ছ আর্থিক ফান্ড তৈরি করা সম্মিলিত আলোচনার মাধ্যমে।

বিঃদ্রঃ- আলোচনার মাধ্যমে বাস্তবতার নিরিকে পরিকল্পনার দিক নির্দেশনা পরিবর্তন পরিবর্ধন করার সম্ভাবনা উম্মুক্ত রাখা আছে। সুতরাং আপনার পরামর্শ আমাদের আগামীর পথ আরো সুন্দর ও সাবলীল করবে। যেকোন পরামর্শ মতামত আগ্রহের সাথে আমরা গ্রহণ করবো।

– এম নুরুল আমিন 
পুটিবিলা তাঁতী পাড়া
লোহাগাড়া, চট্টগ্রাম।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*