Home | দেশ-বিদেশের সংবাদ | ওয়াশিংটনে জরুরি অবস্থা জারি ট্রাম্পের

ওয়াশিংটনে জরুরি অবস্থা জারি ট্রাম্পের

image_printপ্রিন্ট করুন

আন্তর্জাতিক ডেক্স : মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন ও ভাইস প্রেসিডেন্ট কমলা হ্যারিস আগামী ২০ জানুয়ারি শপথ নেবেন।

তাদের অভিষেক অনুষ্ঠানে কোনো ধরনের নাশকতা যেন না ঘটে, সে জন্য রাজধানী ওয়াশিংটন ডিসিতে জরুরি অবস্থা ঘোষণা করেছেন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।ডিপার্টমেন্ট অব হোমল্যান্ড সিকিউরিটি ও ফেডারেল ইমার্জেন্সি ম্যানেজমেন্ট এজেন্সিকে স্থানীয় কর্তৃপক্ষের সঙ্গে সমন্বয় করে কাজ করার নির্দেশ দিয়েছেন তিনি।

নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের অভিষেককে ঘিরে মার্কিন আইনপ্রয়োগকারী সংস্থা সম্ভাব্য সহিংসতা ও হামলার হুমকির সতর্কবার্তা দেওয়ার পর প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প রাজধানীতে জরুরি অবস্থা জারি করেন।

স্থানীয় সময় সোমবার সোমবার (১১ জানুয়ারি)  হোয়াইট হাউসের প্রেস অফিস এক বিজ্ঞপ্তিতে জানায়, অভিষেক অনুষ্ঠানের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে আগামী ২৪ জানুয়ারি পর্যন্ত শহরে ফেডারেল বাহিনী মোতায়েন করা হবে। জরুরি অবস্থা কার্যকরে সব ধরনের ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

এদিন সকালে ফেডারেল ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (এফবিআই) অভ্যন্তরীণ এক জরুরি বার্তায় আগামী ২০ জানুয়ারিকে কেন্দ্র করে যুক্তরাষ্ট্রের ৫০টি রাজ্যে ও রাজধানী ওয়াশিংটনে সম্ভাব্য সশস্ত্র হামলার সতর্কবার্তা দেয়। ওয়াশিংটন ডিসির মেয়র মুরিয়েল বোজার এই সপ্তাহে মার্কিন স্বরাষ্ট্র নিরাপত্তা বিভাগকে লেখা এক চিঠিতে ১১ জানুয়ারি থেকে ২৪ জানুয়ারি পর্যন্ত নিরাপত্তা জোরদার করার আহ্বান জানান।

গত ৬ জানুয়ারি যুক্তরাষ্ট্রের পার্লামেন্ট ভবন ‘ক্যাপিটল হিল’-এ আইন-প্রণেতাদের অধিবেশনের সময় সহিংস হামলা চালায় ট্রাম্প সমর্থকরা, যা নিয়ে বিশ্বজুড়ে সমালোচনা হচ্ছে। এ কারণেই নতুন প্রেসিডেন্টের শপথ অনুষ্ঠানের নিরাপত্তা নির্বিঘ্ন করতে ডিস্ট্রিক্ট অব কলাম্বিয়ায় জরুরি অবস্থা জারির ঘোষণা দিলেন ট্রাম্প।

সাধারণত প্রেসিডেন্টরা কোনো দুর্যোগ মোকাবিলায় সহায়তার জন্য জরুরি অবস্থা জারি করেন। কিন্তু এবারের প্রেক্ষাপট ভিন্ন হওয়ায় মার্কিন কর্তৃপক্ষ বাইডেনের শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানকে সামনে রেখে নিরাপত্তা জোরদারের সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

error: Content is protected !!