ব্রেকিং নিউজ
Home | লোহাগাড়ার সংবাদ | আন্দোলনের নামে বৃক্ষ নিধনকারীদের প্রতিহত করতে হবে : লোহাগাড়ায় জেলা প্রশাসক

আন্দোলনের নামে বৃক্ষ নিধনকারীদের প্রতিহত করতে হবে : লোহাগাড়ায় জেলা প্রশাসক

38

মোঃ জামাল উদ্দিন : ২০১৩ সালে ২৮ ফেব্র“য়ারী একটি চিহ্নিত মহল চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কের লোহাগাড়া-সাতকানিয়ায় অসংখ্য বৃক্ষ নিধন করেছে। তারা জনগণের বন্ধ নয়। একটি মানুষের অকৃত্রিম বন্ধু। গাছ মানুষকে ছায়া দেয়, খাদ্য দেয়, সর্বোপরি অক্সিজেন সরবরাহ করে মানব জাতিকে বাঁচিয়ে রাখে। বেশি বেশি করে গাছ লাগানোর এখনই সময়। দুঃস্কৃতিকারীরা যে সংখ্যক গাছ কেটেছে তার ৫ গুণ গাছ লাগিয়ে শুন্যস্থান পূরণ করতে হবে। সাথে সাথে আন্দোলনের নামে যারা বৃক্ষ নিধন করে তাদেরকে সম্মিলিতভাবে প্রতিহত করতে হবে। ১৩ আগষ্ট লোহাগাড়ার বিভিন্নস্থানে বৃক্ষ চারা রোপনের প্রাক্কালে চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসক মেজবাহ উদ্দিন এসব কথা বলেছেন। দুপুরে তিনি প্রথমে বার আউলিয়া ডিগ্রি কলেজ সংযোগ সড়কে একটি গাছের চারা লাগান।

এ সময় কলেজ পরিচালনা কমিটির সভাপতি প্রফেসর ড. রেজাউল কবির চৌধুরী তাকে স্বাগত জানান। এ সময় কলেজে কর্মরত অধ্যক্ষ, উপাধ্যক্ষ, অধ্যাপক-অধ্যাপিকা ও শিক্ষার্থীরা উপস্থিত ছিলেন। পরবর্তীতে তিনি আধুনগর ইউপি কার্যালয় সংযোগস্থলে আরকান সড়কে বৃক্ষ রোপন করেন। এ সময় লোহাগাড়া উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোহাম্মদ ফিজনূর রহমান, সাতকানিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ উল্লাহ, লোহাগাড়া থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ শাহজাহান, উপজেলা আওয়ামীলীগ সাধারণ সম্পাদক মোঃ সালাহ উদ্দিন হিরু, যুগ্ম সম্পাদক ফরিদ আহমদ, চুনতি ইউপি চেয়ারম্যান জয়নাল আবেদীন, আধুনগর ইউপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান সিরাজুল ইসলাম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

37

পরে কুলপাগলী প্রাথমিক বিদ্যালয় চত্বরে একটি আম গাছের চারা রোপন করেন। আধুনগরে বৃক্ষ রোপনের সময় স্থানীয় গুল-এ-জার বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ছাত্রী ও শিক্ষক-শিক্ষিকা অংশগ্রহণ করেন।

পরবর্তীতে লোহাগাড়া উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে স্থানীয় মুক্তিযোদ্ধাদের মাঝে গাছের চারা বিতরণ করেন জেলা প্রশাসক। জেলা প্রশাসকের ব্যতিক্রমধর্মী এ কর্মকান্ড এলাকার জনসাধারণের মাঝে ব্যাপক প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি হয়েছে। জেলা প্রশাসককে পর্যায়ক্রমে উপজেলার বিভিন্ন গ্রামীণ জনপদে এ তৎপরতা শুরু করার আহবান জানিয়েছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*